সরকারি কলেজের শিক্ষক এবং শিক্ষার্থীরা সোশ্যাল মিডিয়ায় “সরকারের ভাবমূর্তি নষ্ট হয়” এমন পোস্ট দিতে পারবেন না।

সরকারী কলেজের শিক্ষার্থী ও শিক্ষকদের সোশ্যাল মিডিয়ায় সরকারের ভাবমূর্তি নষ্ট হয়” এমন পোস্ট বা কোনও অডিও, ভিডিও প্রকাশ বা মতামত বা মন্তব্য করা বা সরকারের ভাবমূর্তি ক্ষুণ্ন করার মতো কোনও লেখা/ভিডিও শেয়ার করতে পারবেন না।

বুধবার মাধ্যমিক ও উচ্চশিক্ষা অধিদপ্তর (ডিএসএইচই) ‘সোশ্যাল মিডিয়া ব্যবহার সম্পর্কিত দিকনির্দেশনা’ সংক্রান্ত একটি বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করেছে,  এবং বৃহস্পতিবার এটি মাধ্যমিক ও উচ্চশিক্ষা অধিদপ্তর এর ওয়েবসাইটে প্রকাশ করেছে।

এই নির্দেশিকাটিতে শিক্ষার্থী ও শিক্ষকদের জাতীয় পর্যায়ে গুরুত্বপূর্ণ ব্যক্তি, সংস্থা, সেবা বা পেশার অথবা জাতীয় ঐক্য বা চেতনার পরিপন্থী কোনও তথ্য  প্রকাশ করা থেকে বিরত থাকতে বলা হয়েছে।

এমন কোনও কিছু প্রকাশ করা যাবে না যা কোনও সম্প্রদায়ের ধর্মীয় অনুভূতিতে আঘাত হানতে পারে বা এছাড়া ধর্মনিরপেক্ষতার নীতিবিরোধী কোনও তথ্য বা তথ্য প্রকাশ করা যাবেনা।

সামাজিক মিডিয়া ব্যবহার সম্পর্কিত দিকনির্দেশনা

এই নির্দেশিকায় শিক্ষক এবং শিক্ষার্থীদের আরও নির্দেশ দেয়া হয়েছে যে কোনও পোস্ট বা কোনও অডিও এবং ভিডিও সামগ্রী আপলোড করা যাবে না যাতে সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতিতে আঘাত হানতে বা দেশের আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতির অবনতি ঘটাতে পারে এমন কোনও উপাদানের বিষয়ে মন্তব্য ও শেয়ার না করতে বলা হয়েছে।

উক্ত বিজ্ঞপ্তি তে এটাও বলা হয়েছে যে জনগণকে অসন্তুষ্ট করতে এবং ভিত্তিহীন, মিথ্যা বা অশ্লীল বিষয়বস্তু প্রচার করতে পারে এমন কোনও লিখন, অডিও এবং ভিডিও প্রকাশ বা শেয়ার করা যাবে না।

সোশ্যাল মিডিয়ায় সক্রিয় বিভিন্ন পেজ এবং গ্রুপের এডমিনদের জাতীয় ঐক্য বা চেতনার পরিপন্থী কোনও তথ্য বা তথ্য তাদের পেজ বা গ্রুপে প্রকাশ করতে নিরুৎসাহিত করা হয়েছে অন্যথায় যিনি পোস্ট দেবেন এবং ঐ পোস্ট যে গ্রুপে বা পেজে প্রচার করা হবে সেই গ্রুপ বা পেজের এডমিন এর বিরুদ্ধে ব্যাবস্থা নেয়া হবে।

শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের প্রধানদেরও খেয়াল রাখতে বলা হয়েছে যাতে তার প্রতিষ্ঠানে কোন ভাবেই শৃঙ্খলা ভঙ্গ না হয়।